সিশেলস গেছেন ১২১ বাংলাদেশি কর্মী, আরো সম্ভাবনা রয়েছে দেশটিতে

বাংলাদেশর নতুন শ্রমবাজার সিশেলস গেছেন ১২১ কর্মী। শুক্রবার (২০ আগস্ট ২০২১) সন্ধ্যা ছয়টায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে তারা সিশেলসের উদ্দেশে রওনা দেন। এর আগে বিকাল তিনটায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে সিশেলসগামী কর্মীদের আনুষ্ঠানিকভাবে বিদায় জানান জনশক্তি

কর্মসংস্থান ও প্রশিক্ষণ ব্যুরো-বিএমইটির মহাপরিচালক মো. শহীদুল আলম এনডিসিসহ কর্মকর্তারা। তিনি বলেন, সিশেলস বাংলাদের জন্য নতুন শ্রমবাজার। দেশটি খুবই সুন্দর। কর্মপরিবেশও ভালো। সরকারি ব্যবস্থাপনায় এই কর্মীরা সেখানে যাচ্ছেন। নতুন এই শ্রমবাজারে অনেক সম্ভাবনা আছে বলেও মনে করেন তিনি। মহাপরিচালক

জানান, এই কর্মীদের দেশটিতে যেতে কোন খরচ হচ্ছে না। চুক্তি অনুযায়ি নিয়োগকর্তা সব খরচ বহন করছে। ২০১৯ সালের ২১ অক্টোবর সিশেলসের রাজধানী ভিক্টোরিয়াতে স্থানীয় সময় বেলা ২টায় বাংলাদেশী জনশক্তি প্রেরণ বিষয়ে দুই দেশের মন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠকে এবিষয়ে একটি চুক্তি সই হয়।

বাংলাদেশের পক্ষে চুক্তি সই করেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ইমরান আহমদ এমপি এবং সিশেলস সরকারের পক্ষে চুক্তিতে সই করেন সিশেলস-এর এমপ্লয়মেন্ট, ইমিগ্রেশন ও সিভিল স্ট্যাটাস মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মিজ মারিয়াম তেলেমাক।

শেয়ার করুন

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*